বাবার মরদেহ বাড়িতে রেখে পরীক্ষা দিলো সুমাইয়া

বাড়ির খাটে বাবার লাশ রেখে চলমান এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছে সুমাইয়া ইয়াসমিন (১৭)। আজ মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) ভোরে সুমাইয়ার বাবা রাজা সরকার (৫০) হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে মারা যান। এদিন সকালে ছিল সুমাইয়ার ইংরেজি দ্বিতীয় পত্র পরীক্ষা। আত্মীয়-স্বজনের কান্নায় ভারী হয়ে উঠলেও চোখের পানি চোখে রেখেই প্রবেশপত্র নিয়ে পরীক্ষা কেন্দ্রে যায়। সুমাইয়া দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট উপজেলার কশিগাড়ী গ্রামের রাজা সরকারের মেয়ে।স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সুমাইয়া ভর্ণাপাড়া উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এ বছর এসএসসি পরীক্ষা দিচ্ছে।বাবার মৃত্যুর খবর শুনে সকালেই ভর্ণাপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের কয়েকজন শিক্ষক এবং সুমাইয়ার কয়েকজন সহপাঠী তার বাড়িতে যায়। অনিচ্ছা থাকা সত্ত্বেও তারা সুমাইয়াকে সান্ত্বনা দিয়ে পরীক্ষা কেন্দ্রে নিয়ে যান।

রানীগঞ্জ দ্বিমুখী উচ্চ বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্রে সুমাইয়া ইংরেজি পরীক্ষা দেয়।পরবর্তীতে সুমাইয়া পরীক্ষা দিয়ে দুপুরে বাড়িতে ফিরলে বাদ জোহর তার বাবার রাজা সরকার (৫০)-এর দাফন সম্পন্ন হয়। রানীগঞ্জ দ্বিমুখী উচ্চ বিদ্যালয় পরীক্ষা কেন্দ্রের সচিব মহিউদ্দিন মিয়া জানান, যথা সময়ে কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে সুমাইয়া পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। বাবা মারা যাওয়ায় সে অনেকটা ভেঙে পড়েছিল। পরীক্ষা চলাকালীন আমরা সার্বক্ষণিক তার খোঁজ-খবর নিয়েছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.