দাম্পত্য রাগ আসে ভালোবাসা থেকে। দাম্পত্য জীবনে সবচেয়ে কাছের বন্ধু হচ্ছে স্ত্রী। সুখ-দুঃখের ভাগিদারও সে। স্ত্রী রেগে থাকলে ঘর-বাহির কোন কিছুই আর ভালো লাগার কারণ থাকে না। সুতরাং বোঝার চেষ্টা করুন যে রাগ করছে মূলত আরো ভালোবাসা পাওয়ার জন্য। কিছু উপায়ে তার রাগ কমিয়ে নিয়ন্ত্রণে আনুন।
প্রথমে শান্ত থাকুন
কথা কম বলুন। স্ত্রীকে বলতে দিন। আপনার প্রতি যদি কোন ক্ষোভ জমে থাকে সেগুলো রাগের সময় সে বলে দেবে। মনোযোগ দিয়ে শুনে সিদ্ধান্ত নিন। এরপর কথা বলুন। তবে তার শান্ত হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন।

তাকে খুশি করার চেষ্টা করুন

মানুষ অকারণে খিটখিটে স্বভাবের হয়ে যায় না, প্রচণ্ড মানসিক অশান্তি থেকে এটা হয়। মানসিক চাপের কারণ অনেক থাকে। সেও কারণ আপনি নাও হতে পারেন। বাইরের কোন সমস্যা সমাধানে যৌথভাবে সিদ্ধান্ত নিন।

তার রেগে যাওয়াটা প্রশংসা করুন

একথা বলতে ভুলবেন না যে, রাগলে তোমাকে আরো সুন্দর লাগে। স্ত্রী যখন কোন কারণে খিটখিটে ও রেগে যাবে তখন তার রাগ হওয়ার প্রশংসা করুন। তার রাগ হওয়া আপনি খুব পছন্দ করেন সেটাও বলতে থাকুন। দেখবেন নিমিষেই রাগ ভেঙে যাবে।

রাগ হওয়ার সময় ভালোবাসা দেখান

ভালোবাসা এমন একটি জিনিস, যা যেকোন মানুষের মন যে কোন কঠিন পরিস্থিতিকে সহজ করে দিতে পারে। সঙ্গী যখন খিটখিটে স্বভাবের হয়ে যাবে ঠিক তখনি আপনি বাড়তি ভালোবাসা দিয়ে অভাবটা পূরণ করে দিন। রাগ থাকবে না।

ধৈর্য রাখুন

ভালো শ্রোতা হওয়ার বিকল্প নেই। স্ত্রী যখন রেগে যাবে তখন ধৈর্য ধরে শুনতে থাকুন। কেননা তার রেগে যাওয়ার সময় আপনি রাগ দেখালে সেটি আরও বড় পর্যায়ে যেতে পারে। তাই স্ত্রী রেগে গিয়ে যা যা বলছে তা নিরবে শুনুন।

নিজের দোষ স্বীকার করুন

আপনার কোন ভুলের জন্য স্ত্রী রেগে গেছে। ঠিক এ সময় আন্তরিকতার সঙ্গে দোষ স্বীকার করে দুঃখ প্রকাশ করুন। দেখবেন স্ত্রী রাগ করেছে ঠিকই কিন্তু এই রাগ বেশিক্ষণ স্থায়ী থাকবে না। দ্রুত সেই রাগ চলে যাবে। তারপর আবার দুজনের সম্পর্কটা রঙিন হয়ে উঠবে- ঝড় শেষে আকাশ যেমন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.