ঋতুস্রাবের দিনগুলোতে অতিরিক্ত ধকল পড়ে শরীরের উপর। পেশির টান, পেটে ব্যথার মতো সমস্যায় জর্জরিত হতে হয় অনেক নারীকেই।
বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ঋতুস্রাব চলাকালীন এই সব অস্বস্তি কাটাতে ও ধকল দূর করার মতো প্রয়োজনীয় পুষ্টি সরবরাহ করতে কাজে আসতে পারে রোজকার কিছু খাবার।

চলুন তবে জেনে নেয়া যাক কোন কোন খাবারগুলো ঋতুস্রাব চলাকালীন অবশ্যই খাওয়া জরুরি-

ডাল

ডালে প্রচুর পরিমাণে আয়রন ও জিঙ্ক থাকে। ঋতুস্রাবের সময়ে ব্যথা কমাতে দারুন উপযোগী ডাল।

টক দই

টক দইতে থাকে প্রচুর পরিমাণ ক্যালশিয়াম ও প্রোটিন। টক দই খেলে পেশিতে টান লাগার সমস্যা কিছুটা লাঘব হতে পারে। শুধু ঋতুস্রাব চলাকালীনই নয়, ঋতুস্রাবের আগে হওয়া অস্বস্তি কমাতেও সহায়তা করতে পারে টক দই।

বাদাম ও বীজ

যে যে বাদাম ও শস্যবীজে ওমেগা-৩ ফ্যাটি অ্যাসিড রয়েছে সেগুলোও কাজে আসতে পারে ঋতুস্রাবের সময়। চাইলে টক দইয়ের সঙ্গে মিশিয়ে নিতে পারেন হরেক রকমের বাদাম ও শুকনো ফল।

কলা

কলা ভিটামিন বি ৬ ও পটাশিয়ামে ভরপুর। তাই দেহে খনিজ পদার্থের ভারসাম্য বজায় রাখতে ও শরীর চনমনে রাখতে কলা অত্যন্ত উপযোগী। ঋতুস্রাবের সময়ে মন ভালো রাখতেও কাজে আসতে পারে কলা।

ডাবের পানি

ঋতুস্রাব চলাকালীন দেহে পানির ভারসাম্য বজায় রাখা খুবই জরুরি। দেহে পানির অভাব দেখা দিলে পেশিতে টান লাগার আশঙ্কা বেড়ে যেতে পারে। তাই দেহে পানির ভারসাম্য বজায় রাখতে পান করতে পারেন ডাবের পানি। খেতে পারেন বিভিন্ন ফল ও সবজির রসও।

Leave a Reply

Your email address will not be published.